Call us: +88 01779641685

September 13, 2018

জেনে-বুঝে পুুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করুন

বিনিয়োগকারীদের জেনে-বুঝে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের অনুরোধ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পুঁজিবাজারের সঙ্গে থাকা ২৭ লাখ ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীর উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আমি অনুরোধ করব, আপনারা যে প্রতিষ্ঠানে বিনিয়োগ করবেন, সে প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে বিনিয়োগ করুন। কেউ অতিলোভ করবেন না। বিনিয়োগ করে কেউ ক্ষতিগ্রস্ত হোক এটা আমরা চাই না।’
রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গতকাল বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) রজতজয়ন্তীর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বিনিয়োগকারীদের প্রতি এ আহ্বান জানন।
শেখ হাসিনা বলেন, ‘আর্থিক খাতের অন্যতম স্তম্ভ পুঁজিবাজারের বিকাশে আমরা সর্বাত্মক সহযোগিতা অব্যাহত রেখেছি। যে কারণে বিশ্বে বাংলাদেশের পুঁজিবাজার দ্রুত বিকাশমান ও সম্ভাবনাময় হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে। পুঁজিবাজার আজকে স্থিতিশীল অবস্থানে উন্নীত হয়েছে।’
তিনি বলেন, ‘বড় প্রকল্প বাস্তবায়নে অর্থায়নের ক্ষেত্রে পুঁজিবাজারের ভূমিকা আরও বাড়ানো হবে। অর্থনীতিকে বেগবান করা, বৃহৎ প্রকল্প বাস্তবায়নে অর্থায়নের ক্ষেত্রে পুঁজিবাজারের অবদান বৃদ্ধি এবং বিনিয়োগকারীদের সুরক্ষা নিশ্চিতের জন্য আমি বিএসইসিসহ পুঁজিবাজার-সংশ্লিষ্ট সবাইকে যথাযথ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানাই।’ এছাড়া পুঁজিবাজারকে গতিশীল করতে, সে সঙ্গে বেসরকারি খাতে বিনিয়োগ বাড়িয়ে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ত্বরান্বিত করতে প্রধানমন্ত্রী আরও কিছু বিষয়ের দিকে লক্ষ্য রাখার আহ্বান জানান।
নতুন নতুন প্রোডাক্ট চালুর মাধ্যমে বিনিয়োগকারীদের সামনে বিনিয়োগের সুযোগ ও বৈচিত্র্য বাড়ানো, নতুন প্রোডাক্ট চালুর আগে তা পরিচিত করানো, পরিচালন প্রক্রিয়া ও কৌশল সম্পর্কে সংশ্লিষ্ট সবাইকে অবহিত করা, দীর্ঘমেয়াদি অর্থায়নের উৎস হিসেবে বন্ড মার্কেটের উন্নয়নের মতো বিষয় এর মধ্যে রয়েছে। এছাড়া আর্থসামাজিক উন্নয়নে পুঁজিবাজারের ভূমিকা ও গুরুত্ব, অন্যান্য খাতের সঙ্গে পুঁজিবাজারের আন্তঃসম্পর্ক, বিএসইসির প্রশিক্ষণ একাডেমির কার্যক্রম জোরদার করে সর্বস্তরে বিনিয়োগ শিক্ষার বিস্তৃতি ঘটানো প্রভৃতি বিষয়ে সেমিনার, ওয়ার্কশপ ও আলোচনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা এবং ‘স্মল ক্যাপ বোর্ড’ চালুর কথা ভাবতে বলেন প্রধানমন্ত্রী। এতে পুঁজিবাজারের অগ্রগতি আরও বৃদ্ধি পাবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।
তিনি বলেন, এসব কর্মকাণ্ড বাস্তবায়িত হলে বেসরকারি খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ত্বরান্বিত হবে এবং দেশের অগ্রগতির ধারা আরও বেগবান হবে।
প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, ২০১০ সালে বাজার ধসের পর স্টক এক্সচেঞ্জের ডিমিউচুয়ালাইজেশন, আইন সংস্কার ও ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের প্রণোদনা ফাইন্যান্সিয়াল রিপোর্টিং কাউন্সিল গঠনসহ বিভিন্ন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।
তিনি বলেন, ‘আমাদের কর্মপ্রচেষ্টার ফলে বিএসইসি পেয়েছে ‘এ’ ক্যাটেগরির নিয়ন্ত্রক সংস্থার সম্মান। বেড়েছে বৈদেশিক বিনিয়োগ। আমাদের পুঁজিবাজারের প্রতি ভারত, চীনসহ অন্যান্য দেশের আগ্রহ বৃদ্ধি পেয়েছে। তারা ভবিষ্যতেও পুঁজিবাজারের উন্নয়নে সর্বাত্মক সহযোগিতা দিয়ে যাবে, যাতে উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণের ক্ষেত্রে পুঁজিবাজার দীর্ঘমেয়াদি অর্থায়নের এক নির্ভরযোগ্য উৎস হয়ে ওঠে।’
প্রধানমন্ত্রী বলেন, চীনের কনসোর্টিয়াম ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের কৌশলগত অংশীদার হওয়ায় পুঁজিবাজারের গভীরতা বাড়ার পাশাপাশি বিনিয়োগকারীসহ সংশ্লিষ্ট সবাই উপকৃত হবেন। এছাড়া পুঁজিবাজারের সব ধরনের অবকাঠামোগত সুবিধা নিশ্চিতের পাশাপাশি সব জায়গায় স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে সবাইকে কাজ করার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী।




DSE-MOBILE TRADING

DSE-MOBILE TRADING

Dhaka Stock Exchange (DSE) has implemented Centralized Order ...

BO Application

BO APPLICATION

NRBC Bank Securities Limited processes and submits BO Application of its clients ...

No-Image

IPO APPLICATION

NRBC Bank Securities Limited processes and submits IPO application of its clients ...